মেনু নির্বাচন করুন

ভাষাওসংস্কৃতি

এই অঞ্চলের অধিকাংশ লোকের মুখের ভাষা বাংলা।

পহেলা বৈশাখ অনুষ্ঠাটি এই অঞ্চলের মানুষ খুব সুন্দর ভাবে উদযাপন করে।

মাছে মাঝে ভাটিয়ালি, মুরসিদি, লালনগীতি গানের বিশেষ আয়োজন করা হয়।

 

ভাষা, সাহিত্য ও সংস্কৃতি কোন অঞ্চলকে ঘিরে যদি সমৃদ্ধি লাভ করে না, তবুও বলতে বাধা নেই যে, এই বৃহত্তর যদুনন্দী ইউনিয়নে রয়েছে বিরাট একটা ভাষা, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক বলয়। এখানে ভাষার উৎকর্ষ সাধনে এবং এই ভাষার একটা বিরাট স্থান জুড়ে রয়েছে তার বিচরণক্ষেত্র যে, কতটা, তা আজকের সময়ে  উপলব্ধি করতে হবে। বাংলা ভাষার উৎকর্ষ সাধণে এবং বাংলার জনগণের মনের গভীরে যে, ভাষার গভীরতা রয়েছে তা আমাদের প্রনিধান করতে হবে।ভাষার একটা শক্তি ও বলীয়ান দিক রয়েছে যা মানুষকে সাহসী করে এবং সাংস্কৃতির একটা বিরাট অংশ জুড়ে উহার চালিকা শক্তি। প্রকৃত পক্ষে এই অঞ্চলের মানুষের মুখের ভাষা বাংলা।